ড্রাফট, টিটি ও পেমেন্ট অর্ডার ইস্যু

0
969

ব্যাংকিং নিউজ বাংলাদেশঃ ব্যাংকিং লেনদেন করার চিরাচরিত কিছু নিয়মাবলি রয়েছে। ব্যাংক থেকে অর্থ উত্তোলন করতে হলে সংশ্লিষ্ট শাখায় গিয়ে চেকের মাধ্যমে হিসাবধারী বা তার বাহক তা উঠাতে পারেন। আবার এক শাখা থেকে অন্য কোন শাখায় কোন হিসাবে টাকা পাঠাতে হলে টিটির মাধ্যমে দ্রুততম সময়ে টাকা পাঠানো যেতে পারে। অর্থ স্থানান্তরের আরো মাধ্যম হলো ডিডি, পেমেন্ট অর্ডার ইত্যাদি। আর এই ড্রাফট, টিটি ও পেমেন্ট অর্ডার ইস্যুর কিছু নিয়ম রয়েছে। যা নিম্নে তুলে ধরা হলো-

১) গ্রাহক ডিডি/টিটি/পিও (DD/TT/PO)- এর দরখাস্ত নির্দিষ্ট ফরমে পূরণ করবেন।
২) গ্রাহক এই ফরম ও নগদ টাকাসহ ক্যাশে গিয়ে টাকা জমা দেবেন। চেকের মাধ্যমেও টাকা জমা দেয়া যায়। ডিডি/টিটি/পিও (DD/TT/PO)- এর টাকার সাথে ব্যাংকের কমিশন, ডাক ব্যয় বা টেলিগ্রাম খরচ আলাদাভাবে বা একই সাথে জমা দেয়া যায়।
৩) টাকা জমা করার পর দরখাস্তটি ব্যাংকের ভাউচারে পরিণত হবে। ডিডি/টিটি/পিও (DD/TT/PO) ইস্যুকারী ব্যাংকের কর্মকর্তা ডিডি/টিটি/পিও (DD/TT/PO) ইস্যু করবেন। তারপর গ্রাহক ডিডি/পিও (DD/PO)- এর পাতা গ্রহণ করবেন বা বুঝে নিবেন। গ্রাহককে এর কস্ট মেমোও দেয়া হয়। তারপর প্রয়োজনীয় টেস্ট নাম্বার দিয়ে ব্যাংকার টিটি (TT) টেলিফোন বা টেলিগ্রামের মাধ্যমে সংশ্লিষ্ট শাখায় প্রেরণ করেন।
৪) ডিডি ও টিটির বেলায় ইস্যুকারী শাখা একটি এডভাইস লিখে প্রদানকারী শাখায় প্রেরণ করে।

Leave a Reply