তারল্য ঝুঁকি ও সুদ হার ঝুঁকির মধ্যে পার্থক্য

0

আমানতকারী, ঋণ গ্রাহক ও অন্যদের পাওনা মেটাতে ব্যর্থ হওয়ার ঝুঁকিকে ব্যাংকের তারল্য ঝুঁকি বলে। অন্যদিকে সুদের হার হ্রাস-বৃদ্ধিজনিত ব্যাংকের ঝুঁকিকে সুদ হার ঝুঁকি বলে। উভয় ধরনের ঝুঁকিই একে অন্যকে প্রভাবিত করে এবং ব্যাংক ব্যবস্থাপকদের দুশ্চিন্তার কারণ হয়ে থাকে। নিম্নে তারল্য ঝুঁকি ও সুদ হার ঝুকির মধ্যকার পার্থক্যসমূহ তুলে ধরা হলাে-

১. প্রকৃতি (Nature)
তারল্য ঝুঁকি হলো নগদ অর্থের সংকট।
অন্যদিকে সুদ হার ঝুঁকি হলো সুদ আয় ও সম্পত্তির মূল্য হ্রাসজনিত ঝুঁকি।

২. উৎপত্তি (Origin)
উত্থাপিত চেক বা পাওনা দাবি মেটাতে অপারগতা থেকে তারল্য ঝুকির উৎপত্তি হয়।
অন্যদিকে বাজারে সুদের হার হ্রাস-বৃদ্ধি এবং দায় ও সম্পত্তির মেয়াদ পূর্তি সময়ে ভিন্নতা (Mismatch) থেকে এর উৎপত্তি হয়।

৩. প্রভাব (Influence)
এক্ষেত্রে নগদ অর্থ সরবরাহে ব্যর্থ হলে ব্যাংকের সুনাম ক্ষতি হয়। ফলে পরবর্তীতে মারাত্মক আর্থিক ক্ষতির সম্ভাবনা থাকে।
অন্যদিকে সুদ আয় এবং সম্পত্তির মূল্য হ্রাসের ফলে মুনাফার পরিমাণ হ্রাস পায়।

৪. উত্তরণের উপায় (Way of Survive)
তারল্য ঝুঁকি মােকাবেলায় আগাম নগদ প্রবাহ চিত্র তৈরি ও অনুসরণ এবং প্রয়ােজনে অধিক সুদে আমানত সংগ্রহ বা ক্ষতি স্বীকার করে সম্পত্তি বিক্রয় করতে হয়।
অন্যদিকে দায় ও সম্পত্তি সৃষ্টিতে (Duration gap) কমানাে ও সুদ হার সোয়াপের মাধ্যমে সুদ হার ঝুঁকি এড়ানো যায়।

Leave a Reply