ব্যাংকারদের বেতনঃ এপ্রিলেই বাস্তবায়নে কঠোর বাংলাদেশ ব্যাংক

1

ব্যাংকের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বাংলাদেশ ব্যাংকের বেঁধে দেওয়া ন্যূনতম বেতন কাঠামো এপ্রিলের মধ্যে বাস্তবায়নের সময়সীমা নির্ধারিত রয়েছে। এরই মধ্যে বেশকিছু ব্যাংক নতুন কাঠামোয় বেতন বাস্তবায়নের ঘোষণাও দিয়েছে। তবে বেশিরভাগ ব্যাংক থেকে এখনো বাস্তবায়নের ঘোষণা আসেনি। ফলে এখন পর্যন্ত ঠিক কতগুলো ব্যাংক নতুন কাঠামোয় বেতন কার্যকর করেছে, সে বিষয়ে এখনো বিস্তারিত জানা যায়নি। অন্যদিকে নতুন কাঠামোয় বেতন কার্যকরের সময়সীমাও শেষ হয়ে আসছে।

এমন অবস্থায় ব্যাংকগুলোর বেতন কাঠামো বাস্তবায়নের অগ্রগতি জানার উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এ বিষয়ে (৭ এপ্রিল, ২০২২) বেসরকারি ও বিদেশি খাতে ৫২টি ব্যাংকের প্রধান নির্বাহীর কাছে চিঠি পাঠানো হয়েছে।

উক্ত চিঠিতে, বিআরপিডি সার্কুলার নং ০২ তারিখ- ২০ জানুয়ারি, ২০২২ ও বিআরপিডি সার্কুলার লেটার নং ০৫ তারিখ- ০১ ফেব্রুয়ারি, ২০২২ এর প্রতি দৃষ্টি আকর্ষন করতে বলা হয়েছে।

চিঠিতে আগামী মঙ্গলবারের মধ্যে (১২ এপ্রিল, ২০২২) বাস্তবায়ন সংক্রান্ত অগ্রগতি জানানোর অনুরোধ করা হয়েছে। এদিকে, নতুন বেতন কাঠামো ঘোষণার পর এর বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে রিট করেন আইনজীবী ও পুঁজিবাজারে বিনিয়োগকারী ফরহাদ বিন হোসেন নামের এক ব্যক্তি। তবে ওই রিটের ওপর কোনো স্থগিতাদেশ দেননি আদালত। ফলে নতুন বেতন কাঠামো বাস্তবায়নে আইনগত কোনো সমস্যা নেই বলে মনে করছে বাংলাদেশ ব্যাংক। প্রথমবারের মতো ব্যাংককর্মীদের জন্য সর্বনিম্ন বেতন নির্ধারণ করে গত ২৫ জানুয়ারি সার্কুলার জারি করে বাংলাদেশ ব্যাংক।

ব্যাংকিং নিউজ বাংলাদেশ (A Platform for Bankers Community) প্রিয় পাঠকঃ ব্যাংকিং বিষয়ক গুরুত্বপূর্ণ খবরগুলো আপডেট পেতে আমাদের অফিসিয়াল ফেসবুক পেজ ব্যাংকিং নিউজ বাংলাদেশ এ লাইক দিন এবং ফেসবুক গ্রুপ ব্যাংকিং ইনফরমেশন এ জয়েন করে আমাদের সাথেই থাকুন।

এতে বলা হয়, ব্যাংকের এন্ট্রি লেভেলের কর্মকর্তাদের শিক্ষানবিশকালে ন্যূনতম বেতন-ভাতা হবে ২৮ হাজার টাকা। শিক্ষানবিশকাল শেষ হলে প্রারম্ভিক মূল বেতনসহ ন্যূনতম মোট বেতন-ভাতা হবে ৩৯ হাজার টাকা। আর কর্মচারীদের ন্যূনতম প্রারম্ভিক বেতন-ভাতাদি হবে ২৪ হাজার টাকা। প্রথম দফায় গত মার্চ থেকে এ সিদ্ধান্ত কার্যকরের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু সার্কুলার জারির পরই তা বাস্তবায়নে সময় বৃদ্ধিসহ অসঙ্গতি দূর করার অনুরোধ জানায় বেসরকারি ব্যাংকের মালিকদের সংগঠন বাংলাদেশ সোসিয়েশন অব ব্যাংকস (বিএবি)। সে অনুযায়ী, সার্কুলারের কার্যকরের সময়সীমা ১ মাস পিছিয়ে এপ্রিল করা হয়। একই সঙ্গে ব্যাংকের জেনারেল সাইডের নির্ধারণ করা বেতন কাঠামো ঠিক রেখে ক্যাশ বিভাগে ২ হাজার টাকা কমানো হয়।

গত বৃহস্পতিবার (৭ এপ্রিল, ২০২২) কেন্দ্রীয় ব্যাংকের পাঠানো চিঠিতে বলা হয়েছে, গত ১ ফেব্রুয়ারি সার্কুলারের মাধ্যমে ব্যাংকের কর্মকর্তা কর্মচারীতের ন্যূনতম বেতন-ভাতা এপ্রিলের মধ্যে বাস্তবায়নের অনুরোধ করা হয়েছিল। এখন ওই নির্দেশনা বাস্তবায়ন অগ্রগতি আগামী ১২ এপ্রিলের মধ্যে অবহিতকরণের জন্য আপনাদের অনুরোধ করা হলো।

জানা যায়, ইতিমধ্যে ইসলামী ধারার প্রায় সব ব্যাংক নতুন কাঠামোয় বেতন কার্যকর করেছে। এ ছাড়া প্রচলিত ধারার বেশ কয়েকটি ব্যাংকের কার্যকরের বিষয়টি অনুমোদন পর্যায়ে রয়েছে।

সার্কুলার অনুযায়ী, ব্যাংকগুলোর এন্ট্রি লেভেলে জেনারেল সাইডে নিযুক্ত কর্মকর্তাদের শিক্ষানবিশকালে ন্যূনতম বেতন-ভাতা হবে ২৮ হাজার টাকা। আর ক্যাশ বিভাগের কর্মকর্তাদের শিক্ষানবিশকালে ন্যূনতম বেতন-ভাতাদি হবে ২৬ হাজার টাকা। শিক্ষানবিস শেষে জেনারেল সাইডে নিযুক্ত কর্মকর্তাদের প্রারম্ভিক মূল বেতনসহ ন্যূনতম সর্বমোট বেতনভাতা হবে ৩৯ হাজার টাকা।

আর শিক্ষানবিশ শেষে ক্যাশ বিভাগের কর্মকর্তাদের ন্যূনতম বেতন-ভাতাদি হবে ৩৬ হাজার টাকা। পাশাপাশি ব্যাংকের কর্মচারী বা চুক্তির ভিত্তিতে নিয়োগ হওয়া অফিস সহায়কদের সর্বনিম্ন বেতন-ভাতাও ঠিক করে করে দেওয়া হয়। সার্কুলার অনুযায়ী, নারায়ণগঞ্জ, গাজীপুরসহ সব বিভাগীয় শহরের জন্য বেতন-ভাতা ঠিক করা হয়েছে ২৪ হাজার টাকা, জেলা শহরের জন্য ২১ হাজার টাকা ও উপজেলার জন্য ১৮ হাজার টাকা।

১টি মন্তব্য

Leave a Reply